বাহুবলে ইটভাটা থেকে শ্রমিকের লাশ উদ্ধার-
স্টাফ রিপোর্টার ॥ বাহুবল উপজেলার শাকিল ইটভাটায় আমিরুল ইসলাম (৩২) নামে এক শ্রমিকের রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। এটা হত্যা না অন্য কিছু এ নিয়ে রহস্যের সৃষ্টি হয়েছে। নিহত শ্রমিক সাতক্ষীরা সদর উপজেলার নারায়নপুর গ্রামের কমর উদ্দিনের ছেলে।
সূত্র জানায়, প্রায় দুই মাস আগে পূর্ব জয়পুর এলাকার শাকিল ব্রিকসে জিকজ্যাক পদ্ধতিতে শাহীন সর্দারের সাথে কাজ করতে আসে আমিরুল। সম্প্রতি কাজের চাপে শাহিনের বেশ কয়েকজন লোক পালিয়ে গেলে আমিরুলের উপর চাপ দিতে থাকে ইটভাটার মালিকপক্ষ। গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে তার রুমে গিয়ে মৃত অবস্থায় লাশ দেখতে পায় অন্য শ্রমিকরা। তখন কাউকে না জানিয়ে তড়িঘড়ি করে লাশ সাতক্ষীরায় পাঠানোর জন্য ব্যস্ত হয়ে পড়ে ইটভাটা কর্তৃপক্ষ। খবর পেয়ে সকাল ৯টার দিকে ভাদেশ্বর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান (ভারপ্রাপ্ত) এখলাছুর রহমান কয়েকজন সদস্যকে নিয়ে ঘটনাস্থলে যান। চেয়ারম্যান বলেন, ইটভাটায় গিয়ে সাইট ম্যানেজার ছাড়া কাউকে পাইনি। লাশটি ঘরের ভিতর পড়ে রয়েছিল। মালিক পক্ষের সাথে যোগাযোগ করার চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়ে ফিরে এসেছি। বেলা দুইটায় ঘটনাস্থলে যান হবিগঞ্জের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার রাসেলুর রহমান। তিনি বলেন, লাশে আঘাতের কোন চিহ্ন পাওয়া যায়নি। ধারণা করা হচ্ছে সে মাদকাসক্ত ছিল।

-