ঐতিহ্যবাহী বিথঙ্গল আখড়ার উপদেষ্টা কমিটি ও কার্যকরি পরিষদ গঠিত
সুকুমার দাস মোহন্ত সভাপতি, শংকর পাল সাধারণ সম্পাদক
বানিয়াচঙ্গের ঐতিহ্যবাহী বিথঙ্গল বড় আখড়ার উপদেষ্টা কমিটি ও কার্যকরি পরিষদ গঠন করা হয়েছে। এ উপলক্ষে ১২ আগস্ট আখড়ার সুকুমার দাশ মোহন্ত গোস্বামীর সভাপতিত্বে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সর্বসম্মতিক্রমে ২১ সদস্য বিশিষ্ট উপদেষ্টা কমিটি ও ১০১ সদস্য বিশিষ্ট আখড়া পরিচালনা কমিটি গঠন করা হয়। উপদেষ্টারা হলেন- এমপি এডভোকেট আব্দুল মজিদ খান, স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব অশোক মাধব রায়, সরকারি বৃন্দাবন কলেজের অবসরপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ নিখিল ভট্টাচার্য্য, অবসরপ্রাপ্ত উপ-সচিব বিকাশ চৌধুরী, বানিয়াচঙ্গ উপজেলা চেয়ারম্যান ইকবাল হোসেন খান, হবিগঞ্জ জেলা পূজা উদযাপন কমিটি সভাপতি এডভোকেট অহিন্দ্র কুমার দত্ত চৌধুরী, মনোজ দেব রায়, এডভোকেট পূণ্যব্রত চৌধুরী বিভু, এডভোকেট স্বরাজ বিশ্বাস, এডভোকেট ত্রিলোক কান্তি চৌধুরী বিজন, এডভোকেট সমর কৃষ্ণ, সিতাংশু কুমার দাশ, উৎপল সামন্ত, প্রফুল্ল চন্দ্র বৈষ্ণব, নিখিল চন্দ্র বণিক, রাজকুমার বৈষ্ণব, শংকর দাশ, তুলসী পাল, সুখলাল সুত্রধর, গোপাল চন্দ্র দাস, মাখন লাল অধিকারী।
আখড়া পরিচালনা কমিটির নেতৃবৃন্দ হলেন- সভাপতি গোসাই সুকুমার দাস মোহন্ত, সহ-সভাপতি (৫ জন) রবীন্দ্র চন্দ্র বৈষ্ণব, এডভোকেট নলিনী কান্ত রায় নিরু, প্রিয়তোষ রঞ্জন দেব, সুরেশ রঞ্জন চৌধুরী ও জয় কুমার বৈষ্ণব, সাধারণ সম্পাদক শংকর পাল, সহ-সাধারণ সম্পাদক উপেন্দ্র অধিকারী, যুগ্ম সম্পাদক বিজয় বিহারী দাশ, অর্থ সম্পাদক অমল রায়, যুগ্ম অর্থ সম্পাদক রাধিকা রঞ্জন রায়, সাংগঠনিক সম্পাদক রামলাল দাস, যুগ্ম সাংগঠনিক রঞ্জিত বৈষ্ণব, আইন বিষয়ক সম্পাদক এডভোকেট সুদ্বীপ কান্তি বিশ্বাস সজল, যুগ্ম আইন বিষয়ক সম্পাদক পীযুষ কান্তি দাশ, দপ্তর সম্পাদক শচীন্দ্র অধিকারী, যুগ্ম দপ্তর সম্পাদক বিজয় জ্যোতি চৌধুরী, প্রচার সম্পাদক এডভোকেট মনমোহন দেবনাথ, যুগ্ম প্রচার সম্পাদক নিশীকান্ত দাস, সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক শশীমোহন বৈষ্ণব, যুগ্ম সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক হরবল্ল¬ভ চৌধুরী। সদস্যরা হলেন- সুরঞ্জিত দাশ বৈষ্ণব, হীরেন্দ্র দত্ত, জগদীশ চন্দ্র মোদক, এডভোকেট গৌরাঙ্গ চন্দ্র শীল, এডভোকেট শ্যামল কান্তি দাস, সুবোধ বণিক, বেনী মাধব রায়, বেনু মোদক, অনুপ কুমার দেব, উত্তম রায়, বাদল রায়, প্রদীপ রায়, গোপাল রায়, রাকেশ অধিকারী, অঞ্জন রায়, মিন্টু কুমার দাস, অরুণ কুমার অধিকারী, হরিদাস সুত্রধর, মৃণাল কান্তি চৌধুরী, পরেশ চন্দ্র গোপ, কালীদাস সূত্রধর, রুপেন রায়, কৃপেশ রায়, অনিল দাশ, বিথীন্দ্র শেখর দাশ, হীরেশ চক্রবর্তী, কাজল চৌধুরী, পতাকী দাশ, জয় গোবিন্দ বৈষ্ণব, অরুণ রায়, সুনীল সুত্রধর, রণধীর দাস রানু, নরেন্দ্র বৈষ্ণব, সুদীন বৈষ্ণব, ঞ্জিন বৈষ্ণব, মনিষ পাল রয়েল, সমীর পাল, ব্রজেন্দ্র চক্রবর্তী, গৌরহরি দাস, পরেশ শীল, শরলাল বৈষ্ণব, সুভাষ বৈষ্ণব, রতন বৈষ্ণব, মাখন চন্দ্র বৈষ্ণব, উপেন্দ্র চন্দ্র বৈষ্ণব, বিষ্ণুপদ বৈষ্ণব, রবীন্দ্র চন্দ্র বৈষ্ণব, যোগেশ চন্দ্র বৈষ্ণব, শ্রীচরণ বৈষ্ণব, ললিত বৈষ্ণব, ধরণী বৈষ্ণব, মতিলাল বৈষ্ণব, চন্দ্রমোহন বৈষ্ণব, রাবেন্দ্র চন্দ্র দাস, মোহন লাল দাস, প্রেমানন্দ দাস, দেবী চাঁদ দাস, সুষেন চন্দ্র দাস, পতাকী দাস, ক্ষীরমোহন দাস, জোতিশ কান্তি বৈষ্ণব, জয়কুমার বৈষ্ণব, জয়হরি বৈষ্ণব, প্রকাশ বৈষ্ণব, মাধাই বৈষ্ণব, ফুলেন্দ্র বৈষ্ণব, প্রাণকৃষ্ণ বৈষ্ণব, রাকেশ বৈষ্ণব, রাজেন্দ্র বৈষ্ণব, ভবঞ্জয় বৈষ্ণব, রনবিন্দু বৈষ্ণব, রাখাল বৈষ্ণব, রমেশ বৈষ্ণব, দীগেন্দ্র বৈষ্ণব, নগেন্দ্র বৈষ্ণব, রায়মোহন বৈষ্ণব, সুধীর বৈষ্ণব, জয়কুমার বৈষ্ণব, অরুন কুমার বৈষ্ণব প্রমুখ।